চট্টগ্রামে আবাসিক হোটেল থেকে ১১ ডাকাত গ্রেপ্তার

বার্তা‌জগৎ২৪ ডেস্কঃ

প্রকাশিতঃ ২৪ অগাস্ট ২০১৯ সময়ঃ বিকেল ৫ঃ২৫
চট্টগ্রামে আবাসিক হোটেল থেকে ১১ ডাকাত গ্রেপ্তার
চট্টগ্রামে আবাসিক হোটেল থেকে ১১ ডাকাত গ্রেপ্তার

দিদার, বিশেষ প্রতিনিধিঃ

গতকাল শনিবার রাতে গোপন সংবাদের ভিত্তিতে খবর পেয়ে বন্দরনগরী চট্টগ্রামের লালদিঘী এলাকার আবাসিক হোটেল তুনাজ্জিনে অভিযান চালিয়ে আন্তঃজেলা ডাকাত দলের ১১ সদস্যকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ।

গ্রেপ্তারের বিষয়টি নিশ্চিত করে আজ রোববার দুপুর সাড়ে ১২ টার দিকে এক সংবাদ সম্মেলনের মাধ্যমে উপ-পুলিশ কমিশনার (দক্ষিণ) এসএম মেহেদী হাসান জানান, গত ফেব্রুয়ারি ও জুনে নগরের জুবলী রোড ও নন্দনকানন এলাকায় দুটি দুর্ধর্ষ চুরির ঘটনা ঘটে। এ সব ঘটনার অনুসন্ধানে নেমে একটি আন্তঃজেলা ডাকাত দলের সন্ধান পায় পুলিশ।

এরা দীর্ঘদিন ধরে চট্টগ্রাম ছাড়াও বাংলাদেশের বিভিন্ন গুরুত্বপুর্ণ শহর ও বাণিজ্যিক এলাকায় শো-রুমে, বিকাশের দোকান, কাপড়ের দোকান ও বড় মুদির দোকানে চুরি-ডাকাতি করে আসছিল। বিভিন্ন সময়ে করে আসা অভিযোগের ভিত্তিতে নগর পুলিশের একটি গোয়েন্দা দল তাদের অনুসন্ধান করে আসছিল।

গতকাল গোপন সংবাদের ভিত্তিতে নগরের লালদিঘী এলাকার আবাসিক হোটেল তুনাজ্জিনে অভিযান চালিয়ে ডাকাত দলের ১১ সদস্যকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে তারা স্বীকার করেছে, ফের নতুন করে চুরি -ডাকাতির জন্য তারা চট্টগ্রাম এসেছিল। গ্রেপ্তারের সময় তাদের কাছ থেকে দুটি দেশীয় তৈরি অস্ত্র, চারটি কার্তুজ, একটি লোহার কাটার, একটি লোহার রড উদ্ধার করা হয়েছে।

এই সিন্ডিকেট ডাকাত দলের সদস্যরা নিজেদের মধ্যে কথা বলার সময় বিশেষ সাংকেতিক শব্দ ব্যবহার করে কথা বলেন। সাংকেতিক সেই ভাষায় পুলিশকে তারা তেলাচোরা বা তেইল্লাচোরা বলে ডাকে।

অপরদিকে সাংকেতিক ভাষায় তারা দোকানকে বলে অফিস, তালাকে বলে আম, কার্টারকে বলে গাড়ী, চাদরকে বলে ঠোঙ্গা, দোকানের ভিতর চুরি করার জন্য যে প্রবেশ করে তাকে বলে অফিসম্যান, সংবাদদাতাকে ডাকে লাইনম্যান, চুরি করাকে বলে ডিউটি, চুরির টাকা পয়সাকে বলে ব্যবসা, চুরি করা টাকা ভাগ বাটোয়ারার সময় ১ লক্ষ টাকাকে বলে ১ টাকা।

গ্রেপ্তারকৃত ডাকাত দলের সদস্যরা হলো- দলনেতা হানিফ ওরফে হাতপোড়া হানিফ (৩৮), সেকেন্ড ইন কমান্ড কামাল (২৮), মো. লিয়াকত হোসেন (২৪), মো. তৌফিক (২৬), মো. মাসুম (২৬), নয়ন মল্লিক (২২), মো. মিলন (২৫), মো. কামাল হোসেন (২৮), জামাল উদ্দিন (৩০), মো. কামাল ওরফে ভুসি কামাল (৩২), মো. মিজান (২৫)।

জিজ্ঞাসাবাদে জানা গেছে তাদের অধিকাংশ সদস্যের বাড়ি কুমিল্লা জেলার বিভিন্ন এলাকায়।

বার্তা‌জগৎ২৪.কম/এফ এইচ পি