মাসে ১৮ হাজার লিটার সরকারি গাড়ির তেল চুরি, গ্রেপ্তার ৪

বার্তাজগৎ২৪/ এমএ
বার্তাজগৎ২৪ ডেস্ক: বার্তাজগৎ২৪ ডেস্ক:
প্রকাশিত: ২:৩১ পূর্বাহ্ন, ১২ অগাস্ট ২০২২ | আপডেট: ৬:২০ পূর্বাহ্ন, ২৮ সেপ্টেম্বর ২০২২
ফাইল ছবি

রাজধানীর আগারগাঁও থেকে উচ্চ পদস্থ সরকারি কর্মকর্তাদের অফিসিয়াল গাড়ির তেল চুরি চক্রের ৪ সদস্য গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ।

সরকারি গাড়ি থেকে প্রতি মাসে প্রায় ১৮ হাজার লিটার তেল চুরি হচ্ছে। সংশ্লিষ্ট গাড়ির চালকরাই এর সঙ্গে জড়িত। তারা প্রতি গাড়ি থেকে দিনে তিন-চার লিটার তেল সরিয়ে অসাধু ব্যবসায়ীদের কাছে বিক্রি করে দিতেন। প্রতিদিন গড়ে ৫০টি গাড়ি থেকে এভাবে তেল চুরি করা হত।

তেল চুরিতে জড়িত চারজনকে গ্রেপ্তারের পর বুধবার বিকেলে পুলিশের তেজগাঁও বিভাগের উপকমিশনারের কার্যালয়ে এক সংবাদ সম্মেলনে এ তথ্য জানানো হয়। গ্রেপ্তার ব্যক্তিরা হলেন- আবু কালাম, মো. সুমন, মো. বাবু ও মো. শাহিন। তাদের কাছ থেকে প্রায় ৬০০ লিটার অকটেন ও পেট্রোল জব্দ করা হয়েছে।

পুলিশের তেজগাঁও বিভাগের উপ-কমিশনার এইচএম আজিমুল হক সংবাদ সম্মেলনে বলেন, আগারগাঁওয়ে বিজ্ঞান প্রযুক্তি জাদুঘরের সামনের কয়েকটি দোকানে সরকারি উচ্চপদস্থ কর্মকর্তাদের গাড়ির জ্বালানি তেল চুরি করে বিক্রি হয় বলে তথ্য ছিল। প্রাথমিক অনুসন্ধানে এর সত্যতা মেলে। এরপর বুধবার দুপুরে পুলিশের তেজগাঁও জোনের সহকারী কমিশনার মাহমুদ খানের নেতৃত্বে অভিযান চালিয়ে তিনটি দোকান থেকে চোরাই অকটেন ও পেট্রোল উদ্ধার করা হয়।

তিনি বলেন, গ্রেপ্তার হওয়া চারজনই প্রতিটি সরকারি গাড়ি থেকে ৩-৪ লিটার করে তেল কিনতেন। এভাবে প্রতিদিন ৪৫-৫০টি গাড়ি থেকে একটি দোকানে যেত ২০০ লিটার তেল। অর্থাৎ এক মাসে প্রায় ছয় হাজার লিটার। সে হিসাবে তিনটি দোকানে মাসে ১৮ হাজার লিটার চোরাই তেল কেনাবেচা হতো। আগারগাঁও এলাকায় সরকারি অফিসের আধিক্যের কারণে চক্রটি ওই এলাকাকে টার্গেট করেছিল।

উপকমিশনার জানান, তারা প্রতি লিটার অকটেন ১০০ টাকায় কিনতেন। পরে খোলাবাজারে তা ১২৮-১৩০ টাকায় বিক্রি করা হতো। একইভাবে প্রতি লিটার পেট্রোল ১১০ টাকায় কিনে ১৩০ টাকায় এবং প্রতি লিটার ডিজেল ১০০ টাকায় কিনে ১০৮-১১০ টাকায় বিক্রি করে আসছিলেন।

বার্তাজগৎ২৪/ এমএ