এসএ গেমসের ফাইনালে স্বর্ণ জয় করল সালমা-জাহানারারা

বার্তাজগৎ২৪ ডেস্ক:

প্রকাশিতঃ ৯ ডিসেম্বর ২০১৯ সময়ঃ রাত ১ঃ২৬
এসএ গেমসের ফাইনালে স্বর্ণ জয় করল সালমা-জাহানারারা
এসএ গেমসের ফাইনালে স্বর্ণ জয় করল সালমা-জাহানারারা

দিদারুল ইসলাম:

প্রথমবারের মতো এশিয়া কাপের শিরোপা জয়ের পরে এবারে আরো একটি সফলতা এসে ধরা দিল বাংলাদেশ মহিলা ক্রিকেট দলের কাছে। সাউথ এশিয়ান গেমসে (এসএ গেমস) শ্রীলঙ্কা নারী ক্রিকেট দলকে হারিয়ে বাংলাদেশের হয়ে ১১ তম স্বর্ণ জয় করলেন সালমা খাতুনের দল। টুর্নামেন্টের শুরু থেকে ফেবারিট ধরা হয়েছিল বাংলাদেশ নারী ক্রিকেট দলকে অবশেষে তারা সেই বিশ্বাসকে সত্যি প্রমাণিত করে দেশবাসীকে অবিস্মরণীয় একটি জয় উপহার দিয়েছে।

প্রতিদ্বন্দ্বিতাপূর্ণ শ্বাসরুদ্ধকর এই ফাইনালে শ্রীলঙ্কা নারী দলের বিপক্ষে নিজেরা মাত্র ৯১ রানে থেমে গেলেও অসাধারণ বোলিং নৈপুণ্যে জয় ছিনিয়ে নিতে ভুল করেনি বাংলাদেশ দল।

নিজেদের প্রথম রাউন্ডের তিন ম্যাচেই সহজ ভাবে জয় পেয়েছিল বাংলাদেশ নারী ক্রিকেট দল। কিন্তু ফাইনালে এসে শুরুতে ব্যাটিংয়ে নামে খুব অল্প রানে থেমে যায় বাংলাদেশ। শ্রীলঙ্কান নারী দলের নিয়ন্ত্রিত বোলিংয়ে ৮ উইকেটে ৯১ রানের বেশি স্কোর গড়তে পারেনি তারা।পরে রান তাড়া করতে নেমে বাংলাদেশের আগুন ঝরানো বোলিংয়ে ৯ উইকেটে ৮৯ রানে থেমে যায় শ্রীলঙ্কা।

শ্রীলংকার নারী ক্রিকেট দলের স্বর্ণ জয়ের জন্য তাড়া করতে হতো ৯২ রানের ছোট লক্ষ্য। সেই রান তাড়া করতে নেমে শুরু থেকেই ব্যাকফুটে চলে যায় শ্রীলঙ্কা। ইনিংসের প্রথম ১০ ওভারে মাত্র ৩৬ রান তুলতেই হারিয়ে ফেলে ৪টি উইকেট। এরপরে হারশিতা মাধবী এবং লিহিনি আপসারা মিলে কিছুটা হলেও চাপ সামাল দিয়ে দলকে এগিয়ে নিতে থাকেন এমনকি একপর্যায়ে জয়ের খুব কাছাকাছি চলে গিয়েছিল শ্রীলঙ্কা। তাদের মধ্যে অধিনায়ক হারশিতা ৩৩ বলে ৩২ রান করে আউট হয়ে গেলেও আপসারা খেলেছেন একেবারে শেষ ওভার পর্যন্ত।

শ্বাসরুদ্ধকর এই ম্যাচে শেষ ৬ বলে জয়ের জন্য প্রয়োজন ছিলো ৭ রান। বাংলাদেশ নারী ক্রিকেট দলের সবচেয়ে নির্ভরযোগ্য খেলোয়াড় জাহানারা আলমের করা সে ওভারে ৪ রানের বেশি নিতে পারেনি শ্রীলঙ্কা। শ্রীলংকার হয়ে ২৫ রান করা আপসারা ও আউট হয়ে যায় সেই ওভারে।

অন্যদিকে বাংলাদেশ দলের হয়ে ৪ ওভারে মাত্র ৯ রান খরচায় ২ উইকেট নেন নাহিদা আকতার। এছাড়া ১টি করে উইকেট দখল করেন জাহানারা আলম, সালমা খাতুন ও খাদিজা তুল কুবরা।

শুরুতে টসে হেরে ব্যাট করতে নেমে মোটেও ভালো করতে পারেনি বাংলাদেশ। সপ্তম ওভারে ৬ বলের মধ্যেই সাজঘরে ফিরে যান ৪ ব্যাটার। মাত্র ৩৬ রানে ৫ উইকেট হারিয়ে কঠিন চাপের মুখে পড়ে যায় সালমা খাতুনরা।সেখান থেকে দলকে উদ্ধার করে লড়াই করার মতো পুঁজি এনে দেন উইকেটরক্ষক নিগার সুলতানা জ্যোতি ও ফাহিমা খাতুন। জ্যোতির ব্যাট থেকে আসে ২৯ রান,ফাহিমা করেন ১৫ রান। এছাড়া সানজিদা ইসলাম ১৫ ও মুরশিদা খাতুন করেন ১৪ রান।

বাংলাদেশ দলের হয়ে ৪ ওভারে ৯ রান দিয়ে ২ উইকেট শিকার করা নাহিদা আক্তার ম্যাচ সেরা পুরস্কার পান।

বার্তাজগৎ২৪/ এম এ

 

Share on: