দেশ থেকে ১০ লাখ কোটি টাকা বিদেশে পাচার হয়েছে : গয়েশ্বর

বার্তাজগৎ২৪/ এমএ
বার্তাজগৎ২৪ ডেস্ক : বার্তাজগৎ২৪ ডেস্ক :
প্রকাশিত: ৩:১৬ পূর্বাহ্ন, ১৯ অগাস্ট ২০২২ | আপডেট: ৬:০২ পূর্বাহ্ন, ২৮ সেপ্টেম্বর ২০২২
গয়েশ্বর চন্দ্র রায়

বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য গয়েশ্বর চন্দ্র রায় বলেছেন, বিএনপির আন্দোলন শুধু ক্ষমতায় যাওয়ার জন্য নয়, জনগণের অধিকার ফিরিয়ে দেয়ার জন্য।

তিনি অভিযোগ করেন, মেগা প্রকল্পের নামে মেগা লুটপাটের ফলে সবকিছুর দাম বাড়লেও দাম কমেছে শুধু আওয়ামী লীগের। সরকারি দলের লোকদের দুর্নীতির কারণে দেশ থেকে ইতমধ্যে ১০ লাখ কোটি টাকা বিদেশে পাচার হয়ে গেছে। কিশোরগঞ্জ সদর উপজেলার দানাপাটুলী মাঠের বাজার এলাকায় বন্যা দুর্গতদের জন্য ফ্রি মেডিক্যাল ক্যাম্প ও বিনামুল্যে ওষুধ বিতরণ কর্মসূচি উদ্বোধন অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তৃতায় তিনি এসব কথা বলেন। 

গয়েশ্বর চন্দ্র রায় আরও বলেন, সরকার বিদেশিদের কাছ থেকে যে টাকা ঋণ নিয়েছে, আগামী বছর থেকে সে টাকার সুদ দেওয়া শুরু করতে হবে। কিন্তু সরকার যে হারে লুটপাট করেছে, তাতে সেই সুদ দেওয়ার কোনো উপায় নেই। দেড় হাজার কোটি টাকার প্রকল্পের এক হাজার কোটি টাকাই লুটপাট করা হয়েছে। 

বিএনপি ক্ষমতার জন্য আন্দোলন করছে না উল্লেখ করে তিনি বলেন, সরকারের লুটপাট, অত্যাচার-নির্যাতনের বিরুদ্ধে আর গণতন্ত্রের জন্য বিএনপি আন্দোলন করছে। সরকার এমন অবস্থার সৃষ্টি করেছে, যে কারণে আমাদেরকে প্রায় প্রতিদিনই কোর্টে হাজিরা দিতে হয়। জনগণের নেত্রী বেগম খালেদা জিয়াও বন্দী। জনগণের নেত্রী বন্দী থাকলে জনগণ মুক্ত থাকতে পারে না। জনগণের আন্দোলনের মাধ্যমে সবাইকে মুক্ত করতে হবে।

 

গয়েশ্বর চন্দ্র রায় বলেন, সারা দেশটাকেই সরকার টর্চার সেল বানিয়ে ফেলেছে। সরকারের টর্চার সেলে বিএনপির ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমানের কোমড়ের হাড় ভেঙে ফেলা হয়েছে। লেখক ফরহাদ মজহারকে অপহরণ করে টর্চার সেলে রাখা হয়েছিল। ইলিয়াস আলীকে গুম করে রেখেছে। সরকারের পাশাপাশি আওয়ামী লীগ নেতা-কর্মীদেরও রয়েছে টর্চার সেল। 
অবিলম্বে সংসদ ভেঙে দিয়ে নিরপেক্ষ সরকারের হাতে ক্ষমতা ছেড়ে দেয়ার দাবিও জানান গয়েশ্বর চন্দ্র রায়।

বার্তাজগৎ২৪/ এমএ